1. paribahanjagot@gmail.com : pjeditor :
  2. jadusoftbd@gmail.com : webadmin :
শুক্রবার, ১৪ জুন ২০২৪, ০৮:২৪ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম:
বৈশ্বিক বিমান সংস্থাগুলোর মুনাফা হবে তিন হাজার কোটি ডলার উত্তরা মোটর্স বাজারে এনেছে ইসুজুর দুই মডেলের বাস বাংলাদেশীদের জন্য ভ্রমণ ফি কমাল ভুটান পরিবহন চাদাবাজি : সিএনজিচালিত অটোরিকশার স্ট্যান্ড দখল নিয়ে সংঘর্ষে রণক্ষেত্র হবিগঞ্জ নিহত ৩, আহত ৫০ গতিসীমা নিয়ে বিতর্ক : শহরে বাইকের সর্বোচ্চ গতি ৩০ কিলোমিটার, মহাসড়কে ৫০ কর্মীরা গণহারে অসুস্থ, এয়ার ইন্ডিয়া এক্সপ্রেসের ৯০ ফ্লাইট বাতিল মগবাজার রেল গেটে ট্রেনের ধাক্কায় গণপূর্ত মন্ত্রণালয়ের গাড়ি চুরমার নতুন দুটি বিদেশি এয়ারলাইন্সের কার্যক্রম শুরু আগামী মাসে : অক্টোবরে চালু হচ্ছে থার্ড টার্মিনাল চট্টগ্রাম বন্দর দিয়ে ৯ মাসে ৪৩৫৫ কোটি ডলারের পণ্য রফতানি ইউএস বাংলার বহরে যুক্ত হলো দ্বিতীয় এয়ারবাস ৩৩০

বিমানের বহরে যুক্ত হচ্ছে আরও ৩টি নতুন ড্যাশ ৮-৪০০ উড়োজাহাজ

শহিদুল আলম
  • আপডেট : সোমবার, ৩০ নভেম্বর, ২০২০

সর্বাধুনিক প্রযুক্তি সংবলিত সম্পূর্ণ নতুন তিনটি ড্যাশ ৮-৪০০ উড়োজাহাজ যুক্ত হচ্ছে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের বহরে। এর প্রথমটি গত মঙ্গলবার দেশে এসেছে। যার নাম দেওয়া হয়েছে ধ্রুবতারা। আগামী বছরের জানুয়ারি ও ফেব্রুয়ারিতে পর্যায়ক্রমে আসছে বাকি দুটি ড্যাশ ৮-৪০০ উড়োজাহা
বাংলাদেশ ও কানাডা সরকারের মধ্যে জিটুজি ভিত্তিতে এ তিনটি উড়োজাহাজ কেনা হচ্ছে। নতুন উড়োজাহাজ বহরে সংযোজনের ফলে অভ্যন্তরীণ ও স্বল্প দূরত্বের আঞ্চলিক ও আন্তর্জাতিক গন্তব্যগুলোয় বাংলাদেশ বিমানের সাপ্তাহিক ফ্রিকোয়েন্সি বাড়বে।
এ ব্যাপারে জাতীয় পতাকাবাহী বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মো. মোকাব্বির হোসেন বলেন, কানাডার নির্মাতা প্রতিষ্ঠান ডি হ্যাভিল্যান্ড নির্মিত চুয়াত্তর আসনের ড্যাশ ৮-৪০০ উড়োজাহাজ পরিবেশবান্ধব এবং অত্যাধুনিক সুযোগসুবিধা সমৃদ্ধ। এ উড়োজাহাজের হাই ফ্রিকোয়েন্সি পার্টিকুলার এয়ার (হেপা) ফিল্টার প্রযুক্তি মাত্র চার মিনিটে ব্যাকটেরিয়া, ভাইরাসসহ অন্যান্য জীবাণু ধ্বংস করে ভেতরের বাতাসকে বিশুদ্ধ করতে সক্ষম। এ ছাড়াও এ উড়োজাহাজে রয়েছে পর্যাপ্ত লেগস্পেস, এলইডি লাইটিং এবং প্রশস্ত জানালা। এতে ভ্রমণ হয়ে উঠবে আরও আরামদায়ক।
বিমানবহরকে উন্নত ও যাত্রী সেবার মান বাড়াতে সম্প্রতি বিমানবহরে যুক্ত হয়েছে বোয়িং কোম্পানির অত্যাধুনিক ড্রিমলাইনারসহ কয়েকটি এয়ারক্রাফট। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে এসব উড়োজাহাজের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন। তিনি নিজেই এসব উড়োজাহাজের বিভিন্ন নাম দেন ধ্রুবতারা, রাজহংস, গাঙচিল, ময়ূরপঙ্খী, আকাশবীণা ও হংসবলাকা। বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স ২০০৮ সালে মার্কিন উড়োজাহাজ নির্মাতা প্রতিষ্ঠান বোয়িং কোম্পানির সঙ্গে চুক্তি করা অত্যাধুনিক কয়েকটি ড্রিমলাইনার দিয়ে বাণিজ্যিক ফ্লাইট পরিচালনা করছে।
বিমানের উপমহাব্যবস্থাপক তাহেরা খন্দকার জানান, প্রধানমন্ত্রীর উদ্যোগে বিমানবহরে সর্বাধুনিক প্রযুক্তি সংবলিত এ তিনটি উড়োজাহাজ যুক্ত হচ্ছে। এর মধ্য দিয়ে বিমানের বহরে উড়োজাহাজের সংখ্যা ১৯টিতে উন্নীত হলো।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরও খবর
© 2020, All rights reserved By www.paribahanjagot.com
Developed By: JADU SOFT